1. bddhaka2009bd@gmail.com : FARUQUE HOSSAIN : FARUQUE HOSSAIN
  2. bddhakanews24.com@gmail.com : admi2017 :
বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১:৫০ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
চট্টগ্রাম যমুনা লাইফের বরখাস্তকৃত ৩ কর্মকর্তার মধ্যে গ্রেপ্তার ২ পলাতক মিসির রায়হান কে খুজছে পুলিশ আলিসান বাড়িতে জায়গা হয়নি মা-বাবার, পুরাতন বাড়ি থেকেও তাড়িয়ে দিলেন প্রবাসী ছেলে পদ্মায় সর্বহারা মানুষের পাশে জারা মাহবুব, সুপেয় পানির ব্যবস্থা ও ত্রাণ বিতরণ রাজশাহীতে সাংবাদিকদের উপর হামলাকারী সকল আসামীদের গ্রেপ্তারের দাবি চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলায় পবিত্র মাহে রবিউল আউয়াল মাসকে স্বাগত জানিয়ে র‌্যালি শিবগঞ্জে তথ্য অধিকার দিবস পালিত জয়পুরহাট আক্কেলপুরে ফেন্সিডিলসহ ছাত্রলীগ নেতা আটক যুবলীগ তাঁতীলীগের উদ্যোগে ও সাবেক সচিব জিল্লার রহমানের পৃষ্ঠপোষকতায় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন চাঁপাইনবাবগঞ্জে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উদযাপন করলেন পৌর ছাত্রলীগ

চাঁপাইনবাবগঞ্জে জাল সনদে ১২ বছর আইনজীবী!

বিডি ঢাকা ডট কম নিউজঃ
  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ৭৯ বার পঠিত

বিডি ঢাকা অনলাইন ডেস্ক

 

জাল সনদে দীর্ঘ ১২ বছর চাঁপাইনবাবগঞ্জ কোর্টে আইন পেশা চালিয়ে যাবার অভিযোগ উঠেছে আব্দুর রহমান নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। তিনি নাচোল পৌর এলাকার শ্রীরামপুর গ্রামের মৃত আব্দুল গফুর ডাক্তারের ছেলে। এনিয়ে বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন নাচোল পৌর এলাকার বাবুল আক্তার নামে এক ব্যক্তি।

এদিকে প্রাথমিক তদন্তে অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় তাঁকে জেলা আইনজীবি সমিতি থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে। তবে তার বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগ সত্য নয় বলে দাবি করেছেন আব্দুর রহমান।

অভিযোগ সূত্রে জানাগেছে,আব্দুর রহমান ১৯৯৮ সালে দাখিল পাশের পর নাচোল ডিগ্রি কলেজ থেকে ২০০০ সালে এচএসসি পাশ করেন। ২০০৩ সালে নাচোল ডিগ্রি কলেজ বর্তমানে (নাচোল সরকারি ডিগ্রি) কলেজ থেকে স্নাতক/বি এ পরীক্ষায় (রোল নং ছিল ৭০৫৫২২)অকৃতকার্য হন। কিন্তু তিনি ওই বছরেই রোল নং-১২৬২৯৩, রেজিস্ট্রেশন নং-৬৬৮৬৩৭ ও ০০২১০৩৪ নং সার্টিফিকেটে উত্তীর্ণ দেখিয়ে ২০০৭ সালে রাজশাহী আইন কলেজ থেকে এলএলবি পরীক্ষা দেন।

সেখানে উত্তীর্ণ হয়ে বাংলাদেশ বারকাউন্সিলের অধীনে আইনজীবি হিসেবে তালিকাভূক্তির পরীক্ষা দেন। ১৫/১২/২০১০ইং তারিখে আইনজীবি হিসেবে বাংলাদেশ বারকাউনিসলের তালিকাভূক্ত হয়ে ২৫৯নং লাইসেন্স পান। লাইসেন্স পেয়ে তিনি চাঁপাইনবাবগঞ্জ বারকাউন্সিলে গত ০২/০১/২০১১ইং তারিখে আইনজীবি হিসেবে আইনপেশা শুরু করেন।

আব্দুর রহমানের জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনলাইন রেকর্ড থেকে পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক বাদরুজ্জামান স্বাক্ষরিত ডাউনলোড কপিতে দেখা যায়, নাচোল কলেজ (কোর্ড নং-২৬০৪), রোল নং-৭০৫৫২২, রেজিস্ট্রেশন নং-০১৪৬২০৩, অনিয়মিত শিক্ষার্থী হিসেবে ২০০৩ সালের ডিগ্রি পাশ ও সার্টিফিকেট কোর্স’র সনদে তিনি ফেল (অকৃতকার্য) উল্লেখ রয়েছে।

ওই মার্কসীটে ইংরেজি(আবশ্যিক) বিষয়ে ২২নম্বর , ভূগোল ও পরিবেশ বিজ্ঞানের ১ম পত্রে ২৬, ২য়পত্রে ২৫ ও ৩য় পত্রে ৩২ নম্বর পেয়ে অকৃতকার্য হয়েছেন। আব্দুর রহমান ২০০৩ সালে অকৃতকার্য হয়ে ওই বছরেই অন্য পরীক্ষার্থীর রোল নং-১২৬২৯৩, রেজিস্ট্রেশন নং-৬৬৮৬৩৭ ও ০০২১০৩৪ নং সার্টিফিকেট নিজের নামে জাল করে ২০০৭ সালে রাজশাহী আইন কলেজে এলএলবি পরীক্ষা দিয়েছেন।

সম্প্রতি বাবুল আক্তার সরকারের বিভিন্ন দপ্তরে আব্দুর রহমানের বিএ পাশের জালিয়াতির বিরুদ্ধে আবেদনের প্রেক্ষিতে গত ১৪ সেপ্টেম্বর চাঁপাইনবাবগঞ্জ আইনজীবি সমিতির প্রতিনিধিদল নাচোল সরকারি কলেজের অধ্যক্ষের কাছে আব্দুর রহমানের বি এ পাশের তথ্য চাইলে সেখানে কলেজ কর্তৃপক্ষ “২০০৩ সালে আব্দুর রহমান বি এ পরীক্ষার্থী ছিলেন, তবে উত্তীর্ণ হতে পারেননি” মর্মে প্রত্যয়ন প্রদান করেন। এরই প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার সকালে আইনজীবি সমিতির পক্ষ থেকে আব্দুর রহমানকে অবাঞ্ছিত ঘোষনা করে তাঁকে ৭ দিনের মধ্যে আইনজীবি সমিতির নিকট হাজির হয়ে সন্তোষজনক জবাব দানের জন্য নোটিশ জারি করেন।

এ বিষয়ে আব্দুর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে সার্টিফিকেট জালিয়াতির অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, এক বিষয়ের জন্য তিনি তাঁর রেজাল্ট চ্যালেঞ্জ করলে তিনি ওই বছর উত্তীর্ণ হন। কিন্তু সংশোধিত রেজাল্ট নাচোল সরকারি কলেজে পৌঁছেনি বলে দাবি করেন।

এদিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ আইনজীবি সমিতির সভাপতি মো.জোবদুল হক জানান,প্রাথমিকভাবে অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় আব্দুর রহমান কে অবাঞ্ছিত ঘোষনা করা হয়েছে। তিনি সন্তোষজনক জবাব দিতে পারলে পরবর্তিতে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2009-2022 bddhaka.com  # গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রনালয়ের বিধি মোতাবেক নিবন্ধনের জন্য আবেদিত # এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
Theme Developed BY RushdaSoft